চলুন একটু ছিদ্রান্বেষণ করা যাক! মানে অপরের নয়, নিজেরই। আরও বিশদে বলতে গেলে নিজের মুখের। মুখময় ছড়িয়ে থাকা ছোটবড়ো রোমছিদ্র বা পোরস নিয়ে বিব্রত মাঝেমাঝেই হতে হয় বই কী! মুখে সময় অসময়ে যে সব ব্রণ, ব্ল্যাকহেডস, হোয়াইটহেডসের উৎপাত শুরু হয়, তাকে নেমন্তন্ন করে ডেকে আনার পিছনে অন্যতম ভূমিকা এই রোমছিদ্রের! মুখে সেবাম বা তেল নিঃসরণ বেড়ে গেলে ব্রণর আশঙ্কা যেমন বাড়ে, তেমনি পোরসগুলোও আকারে বড় হয়ে যায়, উপর থেকে দেখাও যায়। তবে নিয়মিত কিছু প্রাকৃতিক ঘরোয়া ফেস মাস্ক ব্যবহার করে রোমছিদ্রের আকার ছোট করা সম্ভব।

এ সব ঘরোয়া ফেস মাস্ক আপনার মুখের ত্বক টানটান করে পোরসের আকার সংকুচিত করে দেয়, ফলে মুখের ত্বক টানটান মসৃণ দেখায়। কাজেই আপনিও যদি মুখের পোরস নিশ্চিহ্ন করে ফেলতে চান, তা হলে আজই ট্রাই করুন এই ঘরোয়া ফেস মাস্ক।

 

ডিমের সাদার মাস্ক

ডিমের সাদার মাস্ক

আপনার দরকার:

  • ডিমের সাদা
  • লেবুর রস

পদ্ধতি: লেবুর রস অ্যাস্ট্রিনজেন্ট হিসেবে কাজ করে এবং আপনার ত্বক থেকে তেল আর ময়লা সম্পূর্ণ সাফ করে দেয়। ডিমের সাদা অংশটা মুখের বন্ধ হয়ে যাওয়া রোমছিদ্রের মুখ খুলে দিয়ে তার আকার ছোট করে দেয়। একটা বাটিতে একটা ডিমের সাদা অংশ ফেটিয়ে নিন, তাতে যোগ করুন আধখানা লেবুর রস। দুটো জিনিস খুব ভাল করে মেশান, তারপর চ্যাপ্টা ফেস ব্রাশ দিয়ে সারা মুখে সমান করে লাগান। 20 মিনিট রাখুন, তারপর হালকা গরমজলে ধুয়ে ফেলে ময়শ্চারাইজার লাগিয়ে নিন।

 

পেঁপের মাস্ক

পেঁপের মাস্ক

আপনার দরকার:

  • পেঁপে
  • বেসন
  • গোলাপজল

পদ্ধতি: পেঁপের রসে পাপাইন নামে একধরনের উৎসেচক বা এনজাইম রয়েছে যা ত্বক এক্সফোলিয়েট করে এবং মুখের রোমছিদ্র সংকুচিত করে দেয়। বেসন মুখ পরিষ্কার রাখে আর গোলাপজল টোনার হিসেবে কাজ করে এবং পোরসের আকার বড় হতে দেয় না। এক কাপ থেঁতো করা পেঁপের সঙ্গে দু' টেবিলচামচ বেসন আর কয়েক ফোঁটা গোলাপজল ভালো করে মিশিয়ে নিন। এই মিশ্রণটা মুখে লাগিয়ে 15 মিনিট রাখুন। তারপর জল দিয়ে ধুয়ে ময়শ্চারাইজার মেখে নিন।

 

কলার মাস্ক

কলার মাস্ক

আপনার দরকার:

  • কলা
  • মধু
  • অলিভ অয়েল

পদ্ধতি: মুখের পোরস এত বড় হয়ে গেছে যে খালি চোখেই দেখা যাচ্ছে? তা হলে আপনার দরকার কলা, মধু আর অলিভ অয়েল দিয়ে তৈরি ফেস মাস্ক। এটি মুখ ডিপ ক্লিন, টোনিং এবং মুখের ত্বক টানটান রাখার পাশাপাশি ত্বক আর্দ্রও রাখতে পারে। একটা কলা চটকে নিন, তাতে এক টেবিলচামচ মধু আর অলিভ অয়েল দিয়ে ভাল করে মেশান। এই মিশ্রণটা মুখে লাগিয়ে 10-15 মিনিট রাখুন, তারপর ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে একদিন করতে হবে।

মুখের রোমছিদ্র ছোট করতে চান অথচ ঘরোয়া পদ্ধতিতে মাস্ক তৈরি করার সময় নেই? বেছে নিন ল্যাকমে অ্যাবসলিউট পারফেক্ট রেডিয়্যান্স মিনারেল ক্লে মাস্ক/ Lakme Absolute Perfect Radiance Mineral Clay Mask । এই মাস্কটি মুখের সমস্ত নোংরা আর দূষিত পদার্থ বের করে এনে বড় পোরসের আকার কমিয়ে দিতে পারে।