হাত-পায়ের রোম তোলার জন্য শেভিং অন্যতম সুবিধেজনক পদ্ধতি হলেও শেভিং নিয়ে অনেক মেয়ের মনেই বহু ভুল ধারণা রয়েছে। একবার শেভ করলে পরেরবার রোমের ঘনত্ব বেড়ে যাবে, ত্বক কালো হয়ে যাবে, এ সব ভেবে বেশিরভাগ মেয়ে যথাসম্ভব শেভিং এড়িয়ে চলেন। কিন্তু জানেন কি, শেভ করার জন্য আপনি কী ধরনের ক্ষুর ব্যবহার করছেন তা থেকে শুরু করে শেভিং ক্রিমের ধরন পর্যন্ত প্রতিটি বিষয়ের ওপর নির্ভর করে শেভিংয়ের পরে ঠিক কেমন ফল আপনি পেতে পারেন।

সে জন্যই আমরা নিয়ে এসেছি একটি সহজ ঘরোয়া শেভিং জেলের সন্ধান। এই জেল দিয়ে শেভ করলে আপনার ত্বক থাকবে মসৃণ আর কোমল। যেহেতু এই জেল তৈরি হয়েছে শুধু মাত্র প্রাকৃতিক উপাদান দিয়ে, তাই যে কোনও ত্বকেই এটি ব্যবহার করতে পারেন। নিশ্চিন্তে এই জেল দিয়ে আপনার হাত-পায়ের রোম তুলুন! ত্বক শুষ্ক, লাল হয়ে যাওয়া, চুলকোনোর মতো কোনও সমস্যাই হবে না!

প্রতিবার মসৃণ কোমল শেভিংয়ের জন্য মাথায় রাখুন এ সব টিপস:

01. ভালো মানের ক্ষুর ব্যবহার করুন, ক্ষুর যেন সহজে পরিষ্কার করা যায়।

02.স্নানের পর শেভ করুন। তাতে ত্বকের রোমছিদ্রগুলো খুলে যাওয়ার মতো সময় পাবে, শেভিংও হবে সহজেই।

03. শেভ করার সময় প্রয়োজনমতো ক্ষুর ধুয়ে নিন। হাতের কাছে এক মগ জল রাখুন, তাতে ক্ষুর ডুবিয়ে ধুয়ে নিন, অথবা ভেজা গামছা দিয়ে মুছে সাফ করে নিন।

 

ঘরোয়া শেভিং জেল বানাতে আপনার লাগবে:

ঘরোয়া শেভিং জেল বানাতে আপনার লাগবে:

- 1/2 কাপ অর্গানিক নারকেল তেল

- 1/4 কাপ গরম জল

- ¼ কাপ অ্যালো ভেরা জেল

- ½ চাচামচ নুন

- 2 টেবিলচামচ ভেজিটেবল গ্লিসারিন

- 1 টেবিলচামচ অলিভ অয়েল

- 8 ফোঁটা টি ট্রি এসেনশিয়াল অয়েল

কীভাবে বানাবেন

: ধাপ 01: সসপ্যানে জল গরম করুন, তাতে নুন দিয়ে গুলে নিন

ধাপ 02: এর পর বাকি সব উপাদান দিয়ে ভালোভাবে নাড়তে থাকুন, যাতে সব কিছু পুরোপুরি মিশে যায়

ধাপ 03: আঁচ থেকে নামিয়ে মিশ্রণটা ঠান্ডা হতে দিন

ধাপ 04: এয়ারটাইট কৌটোয় ভরে রেখে দিন, প্রয়োজনমতো ব্যবহার করুন।

হাত পায়ের রোম শেভ করে তোলার পর ময়শ্চারাইজার মাখতে কক্ষনো ভুলবেন না! ভেসলিন ইনটেনসিভ কেয়ার ডিপ রেস্টোর বডি লোশন/Vaseline Intensive Care Deep Restore Body Lotion-এর মতো ঘন আর হাইড্রেটিং ময়শ্চারাইজার ব্যবহার করুন। এতে ত্বকে ঘষা কম লাগবে, আপনার ত্বক তার দরকারি পুষ্টি পাবে, ক্ষুরের কারণে ত্বকে অমসৃণ খসখসে ভাবও থাকবে না।