চুলে ব্লো ড্রাই বা আয়রন দিয়ে স্টাইল করতে কে না ভালোবাসেন বলুন তো! সদ্য স্টাইল করার পর চুলটা দেখতে দারুণ ভালো লাগে ঠিকই, কিন্তু তার পরেই শুরু হয় গোলমাল। তাপের কারণে চুল ক্ষতিগ্রস্ত হলে তা সামাল দেওয়া কিন্তু দুঃস্বপ্নের চেয়ে কম কিছু নয়। চুল উঠে যাওয়া বা চুল পাতলা হয়ে যাওয়ার সূত্রপাতও হতে পারে এখান থেকেই। তাই নিজের যত্ন নেওয়ার পাশাপাশি তাপের কারণে ক্ষতিগ্রস্ত চুলেরও যত্নআত্তি করতে হবে এখন থেকেই! আপনার চুল যদি

অতিরিক্ত স্টাইলিং আর উত্তাপের কারণে খারাপ হয়ে গিয়ে থাকে, তা হলে মেনে চলুন পাঁচটি জরুরি টিপস। চুলে ফিরে আসবে নতুন জীবনের ছোঁয়া।

 

01. কিছুদিন চুলে উত্তাপ দেওয়ার যন্ত্রপাতি ব্যবহার করবেন না

01. কিছুদিন চুলে উত্তাপ দেওয়ার যন্ত্রপাতি ব্যবহার করবেন না

চুলের আরও ক্ষতি এড়াতে আপাতত কিছুদিন হিট স্টাইলিং করা বন্ধ রাখুন। যতদিন চুল তার আগের অবস্থায় ফিরে না আসে, ততদিন হিট স্টাইলিং না করাই ভালো। এতে চুলের হারানো আর্দ্রতা আর ইলাস্টিসিটি ফিরে আসবে, এবং চুল ধীরে ধীরে পুষ্ট হয়ে আগের স্বাস্থ্যকর অবস্থা ফিরে পাবে। যদি একান্তই চুলে স্টাইল করতে হয়, তা হলে আগে খুব ভালো করে হিট প্রোটেকট্যান্ট স্প্রে লাগিয়ে নিন। ট্রেসমে থার্মাল ক্রিয়েশনস হিট টেমার স্প্রে/ TRESemme Thermal Creations Heat Tamer Spray আপনার চুল সুরক্ষিত রাখবে এবং অনেকটা ক্ষতি আটকাবে।

 

02. হেয়ার মাস্ক ব্যবহার করুন

02. হেয়ার মাস্ক ব্যবহার করুন

শুকনো, ক্ষতিগ্রস্ত চুলের জন্য হেয়ার মাস্ক যেন আশীর্বাদের মতো! হেয়ার মাস্কে চুলের পুষ্টি আর আর্দ্রতা বজায় রাখার মতো উপাদান থাকে, এ সব উপাদান চুলের গভীরে ঢুকে ক্ষতি মেরামত করে চুলের স্বাভাবিক উজ্জ্বল ভাব ফিরিয়ে আনে। টিজি বেড হেড আর্বান অ্যান্টি অ্যান্ড ডোটস রেসারেকশন ট্রিটমেন্ট মাস্ক/ TIGI Bed Head Urban Anti and Dotes Resurrection Treatment Mask ব্যবহার করুন। এই মাস্ক চুলের আর্দ্রতা বাড়িয়ে খুব দ্রুত স্বাস্থ্যের জেল্লা ফিরিয়ে আনবে।

 

03. চুল কেটে ফেলুন

03. চুল কেটে ফেলুন

চুল খুব বাজেভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হলে বা পুড়ে গেলে তা কেটে ফেলাই ভালো। তাতে ক্ষতিগ্রস্ত অংশ বাদ পড়ে যাবে, সুস্থ চুল বেড়ে উঠবে। তা ছাড়া নিজেকে দারুণ একটা মেকওভারও দিতে পারবেন।

 

04. হট অয়েল মাসাজ

04. হট অয়েল মাসাজ

ক্ষতিগ্রস্ত চুলে প্রাণ ফেরানোর আর একটা দারুণ উপায় হল সপ্তাহে দু'বার, না হলে অন্তত একবার হট অয়েল মাসাজ নেওয়া। নারকেল, অলিভ বা আমন্ড অয়েল স্ক্যাল্পে মাসাজ করুন। অথবা ডাভ এলিক্সির হেয়ার ফল রেসকিউ রোজ অ্যান্ড আমন্ড হেয়ার অয়েল/ Dove Elixir Hair Fall Rescue Rose & Almond Hair Oil বেছে নিন। এই তেল চুলের গোড়ায় গোড়ায় পুষ্টি জোগায়, স্ক্যাল্পে আর্দ্রতা সঞ্চার করে এবং সুস্থ চুলের বৃদ্ধি ঘটায়।

 

05. হাইড্রেটিং শ্যাম্পু আর কন্ডিশনার ব্যবহার করুন

05. হাইড্রেটিং শ্যাম্পু আর কন্ডিশনার ব্যবহার করুন

চুলে পুষ্টি যথাযথভাবে পৌঁছে দেওয়ার জন্য আপনি কী ধরনের হেয়ার কেয়ার প্রডাক্ট ব্যবহার করছেন, তার দিকে লক্ষ রাখা খুব দরকার। এমন শ্যাম্পু আর কন্ডিশনার ব্যবহার করুন যাতে ময়শ্চারাইজিং উপাদান আছে। লাভ বিউটি অ্যান্ড প্ল্যানেট মুরু মুরু বাটার অ্যান্ড রোজ শ্যাম্পু/ Love Beauty and Planet Muru Muru Butter & Rose Shampoo ব্যবহার করে দেখতে পারেন। প্রতিবার শ্যাম্পু করার পর অবশ্যই কন্ডিশনার লাগাবেন, আর ঠান্ডা জলে চুল ধুয়ে ফেলবেন। এতে পুষ্টি উপাদান আর ময়শ্চার, দুইই চুলের গভীরে ঢুকতে পারে, আর আপনার চুল দেখায় কোমল আর মসৃণ।