প্রতিবার চুলে চিরুনি দেওয়ার সময় গোছা গোছা চুল উঠে যায়? ঘুম থেকে ওঠার পর বালিশে জড়িয়ে থাকে চুল? এমনকী স্নানের সময়ও বাথরুমের মেঝেতে চুল দেখে শিউরে উঠতে হয়?সাধারণত অতিরিক্ত স্টাইলিং বা ভুলভাল প্রডাক্ট ব্যবহার করার কারণেই চুল ওঠে। কিন্তু মাঝেমাঝে কারণটা এর চেয়েও জটিল কিছু হতে পারে!

আপনিও কি চুল উঠে যাওয়ার সমস্যায় ভুগছেন? কেন যে এত চুল উঠছে বুঝে উঠতে পারছেন না কিছুতেই? আমরা পাঁচটি সম্ভাব্য কারণ বাতলে দিলাম চুল ওঠার। জেনে নিন আর সেই সঙ্গে কী করলে চুল ওঠার সমস্যা আয়ত্বে আসবে, জেনে নিন সেই জরুরি তথ্যও!

 

স্ট্রেস থেকে সাবধান

স্ট্রেস থেকে সাবধান

অতিরিক্ত মানসিক চাপ বা স্ট্রেস থেকে চুল উঠে যেতে পারে। আপনার মনের ওপর যখন অতিরিক্ত চাপ থাকে, সে সময় চুলের গোড়ায় অতিরিক্ত চাপ তৈরি হয় এবং চুল অকালে ঝরে যাওয়ার স্তরে পৌঁছে যায়। সুখের কথা, এই সমস্যাটি একান্তই সাময়িক এবং চুল খুব দ্রুত স্বাভাবিক গতিতেই ফের বেড়ে যায়। তবে চেষ্টা করুন খুব বেশি মানসিক চাপ না নিতে, এতে আপনার চুলের স্বাস্থ্যই ভাল থাকবে।

 

বংশগতি আর বয়স

বংশগতি আর বয়স

আমাদের চুলের স্বাস্থ্য ঠিক কেমন হবে তা অনেকটাই নির্ভর করে আমাদের মা-ঠাকুমাদের ওপর। আপনার শরীরে বয়সের ছাপ কত তাড়াতাড়ি এবং কীভাবে পড়বে, তাও নির্ভর করে আপনার ডিএনএ-র ওপর। আপনার মা, ঠাকুমা বা দিদিমার মধ্যে কারও যদি অকালে চুল উঠে যাওয়ার সমস্যা থেকে থাকে, বা কোনও নির্দিষ্ট বয়সে পৌঁছে টাক পড়ে যাওয়ার ব্যাপার থাকে, তা হলে হয়তো আপনাকেও হয়তো একই সমস্যার মুখোমুখি হতে হবে! ভালো মানের হেয়ার কেয়ার প্রডাক্ট ব্যবহার করুন, চুলের যত্নের একটা রুটিন অনুসরণ করুন মন দিয়ে। প্রতিদিনের খাবারে প্রোটিন খাবেন।

 

হরমোনের তারতম্য

হরমোনের তারতম্য

বয়ঃসন্ধির সময়, গর্ভাবস্থায়, মেনোপজের আগে হরমোনের প্রবল ওঠাপড়া হওয়া স্বাভাবিক। এমনকী, কিছু ওষুধের কারণেও হরমোনের তারতম্য দেখা দিতে পারে। এর ফলে ওজন বেড়ে যায়, চুলও উঠে যেতে শুরু করে। হমোনের মাত্রা আবার ঠিকঠাক হয়ে গেলে চুল ওঠাও কমে যায়, স্বাভাবিকভাবে নতুন চুল গজাতে শুরু করে। চুলের স্বাস্থ্য বজায় রাখতে পুষ্টিকর তেল আর হেয়ার মাস্ক দিয়ে যত্ন নিন।

 

আবহাওয়া যখন শত্রু

আবহাওয়া যখন শত্রু

আর্দ্রতার অভাব, সূর্যের কড়া রোদ, বর্ষার চড়া জলীয় বাষ্পের মতো নানা কারণে চুল উঠতে পারে। এই ব্যাপারটি কিন্তু স্বাভাবিক। সব মেয়েই কোনও না কোনও সময় আবহাওয়ার কারণে চুল ওঠার শিকার হন। রোদ, জলীয় বাষ্পের মতো আবহাওয়াগত কারণের হাত থেকে চুল রক্ষা করতে উপযুক্ত প্রডাক্ট ব্যবহার করুন, তাতে চুল ওঠাও নিয়ন্ত্রণে থাকবে। রোজ ক'টা করে চুল উঠছে, সে দিকেও নজর রাখুন।

 

শারীরিক অসুস্থতা ও অভাব

শারীরিক অসুস্থতা ও অভাব

ভিটামিন বি-এর অভাব, রক্তাল্পতা, পলিসিস্টিক ওভারি সিনড্রোমের মতো নানা শারীরিক অসুস্থতার কারণে চুল উঠতে পারে। মাঝেমাঝে কোনও ওষুধের কারণেও চুল পাতলা হয়ে যায়, প্রচণ্ড চুল উঠতে শুরু করে। চিকিৎসকের পরামর্শ নিন এবং চুলের ক্ষতি যথাসম্ভব কমাতে সাপ্লিমেন্ট খান। এর পাশাপাশি চুলের আলাদাভাবে বিশেষ যত্ন তো নিতেই হবে!