কথা হল, ব্রণ কখনও বলেকয়ে আসে না! এখন তার জন্য সদ্য শেষ করা পটেটো চিপসের প্যাকেটই দায়ী হোক বা আপনার নতুন কেনা স্কিনকেয়ার প্রডাক্ট, তাতে আসল ব্যাপারটার কোনও হেরফের হয় না! ব্রণ যেমন, ঠিক তেমনটাই থেকে যায়! যেমন আড়ালে থেকে যায় আসল অপরাধীও!

কিন্তু প্রশ্ন হল, ব্রণর জন্য দায়ী সেই আসল অপরাধীটা কে? উত্তরটা শুনে নিন... সে আর কেউ নয়, আপনার চুল! ঠিকই পড়েছেন! আপনার চুলই যে আসলে আপনার মুখে বেরোনো ব্রণর জন্য দায়ী, তার যথেষ্ট আশঙ্কা রয়েছে। আর একটা তথ্য জানতে চান? গবেষণায় দেখা গেছে অ্যাডাল্ট অ্যাকনে হওয়ার পেছনে মূল কারণ হল চুল। প্রশ্ন হল, ন্যাড়া তো আর হওয়া যাবে না, কাজেই চুলের কারণে ব্রণ বেরনোর হাত থেকে বাঁচার উপায় কী? আমরা কয়েকটা বিষয় জানিয়ে দিচ্ছি, চুলের কারণে ব্রণ হওয়ার হাত থেকে যদি বাঁচতে চান তা হলে এড়িয়ে চলুন এ সব।

 

01. ব্যায়ামের পর স্নান না করা

01. ব্যায়ামের পর স্নান না করা

ব্যায়ামের সময় মাথায় জমে থাকা নোংরা ঘামের সঙ্গে মিশে মুখে গড়িয়ে পড়ে, আর সেই সঙ্গে ব্যাকটেরিয়াও মুখে জমা হয়। এ থেকে ব্রণ হতে পারে। তাই প্রতিবার ব্যায়ামের পর অবশ্যই স্নান করে নেবেন। যদি রোজ শ্যাম্পু নাও করেন, এমনিই জল দিয়ে মাথা ধুয়ে নিন, তাতে ঘাম আর তেল ধুয়ে যাবে, রোমছিদ্র বন্ধ হবে না।

 

02. কপালের ওপর ছোট করে কাটা চুল

02. কপালের ওপর ছোট করে কাটা চুল

মাথায় প্রাকৃতিকভাবে যে তেল তৈরি হয় তা চুলে ছড়িয়ে গিয়ে চুল সুস্থ, কোমল আর চকচকে রাখে। তবে চুল কপালের ওপরে ছোট করে কাটা থাকলে এই তেল ত্বকের সংস্পর্শে এসে প্রদাহ তৈরি করতে পারে যা থেকে ব্রণ হয়। কিন্তু তা হলে কি ব্যাংস কাটবেন না? তা কেন, তবে চেষ্টা করুন নানারকম হেয়ারস্টাইল করতে আর যখনই পারবেন ক্লিপ দিয়ে সামনের ছোট চুল পেছনে আটকে রাখুন।

 

03. ঘুমোনোর সময় চুল খুলে রাখা

03. ঘুমোনোর সময় চুল খুলে রাখা

চুল তেলতেলে বা নোংরা লাগলে রাতে ঘুমোতে যাওয়ার আগে আলগা পনিটেল বা খোঁপায় বেঁধে রাখুন। তাতে চুল মুখে লাগবে না, অবাঞ্ছিত ব্রণর সমস্যাও এড়াতে পারবেন।

 

04. হেয়ার প্রডাক্টের ভুল ব্যবহার

04. হেয়ার প্রডাক্টের ভুল ব্যবহার

অনেক মেয়েই নানান হেয়ার প্রডাক্ট ব্যবহার করেন। কিন্তু সে সব ব্যবহার করার নিয়ম রয়েছে। প্রডাক্ট যাতে চুলেই থাকে, চুল থেকে মুখে না আসে,তার জন্য প্রডাক্ট সরাসরি চুলে স্প্রে না করে আঙুলে বা ব্রাশে লাগিয়ে তারপর চুলে লাগান।

 

05. হেয়ার অ্যাকসেসরি

05. হেয়ার অ্যাকসেসরি

ব্যান্ডানা, টুপির মতো হেয়ার অ্যাকসেসরি পরার অভ্যেস আছে? তা হলে খেয়াল রাখবেন সে সব যেন মাথায় খুব এঁটে না বসে। টুপি বা স্কার্ফ খুব টাইট করে বাঁধলে রোমছিদ্র বন্ধ হয়ে গিইয়ে হেয়ারলাইন বরাবর ব্রণ বেরোতে পারে। হেয়ার অ্যাকসেসরিতে যাতে ঘাম তেল বা ময়লা না জমতে পারে, তার জন্য নিয়মিত সে সব কেচে পরিষ্কার করে রাখুন।