স্পর্শকাতর ত্বকের মেয়েদের জন্য 5টি জরুরি মেকআপ টিপস

Written by Manisha DasguptaNov 30, 2023
স্পর্শকাতর ত্বকের মেয়েদের জন্য 5টি জরুরি মেকআপ টিপস

আপনার ত্বক কি স্পর্শকাতর? তা হলে ত্বকের উপযোগী সঠিক মেকআপ প্রডাক্ট খুঁজে বের করা যে কতটা ঝকমারি, তা আপনি খুব ভালোভাবেই জানেন। কারণ প্রডাক্ট বাছাইয়ে সামান্য এদিক ওদিক হলে তার জের গিয়ে পড়বে ত্বকের ওপর!

স্পর্শকাতর ত্বকের ক্ষেত্রে সঠিক মেকআপ বেছে নেওয়া আর তা ঠিক করে লাগানো, দুটোই খুব জরুরি। এ ক্ষেত্রে বিন্দুমাত্র ভুল হওয়া মানেই ত্বকে লালচেভাব, চুলকানি আর র‍্যাশের সমস্যা দেখা দেবে। ঠিক কিসে আপনার ত্বকে বিরূপ প্রতিক্রিয়া দেখা দেবে সেটা সঠিক করে বলা মুশকিল, তাই আমরা বলে দিচ্ছি কিছু সাধারণ উপায় যা মেনে চললে ত্বকে মেকআপজনিত সমস্যা অনেকটাই ঠেকাতে পারবেন আপনি।

 

মেকআপ করার আগে ত্বককে প্রস্তুত করুন

মেকআপের সরঞ্জাম পরিষ্কার রাখুন

স্পর্শকাতর ত্বক হলে মেকআপ শুরু করার আগে যথাযথ স্কিনকেয়ার রুটিন মেনে ত্বককে প্রস্তুত করে নেওয়া দরকার। খুব কোমল এবং স্পর্শকাতর ত্বকের জন্য বিশেষভাবে তৈরি প্রডাক্টই শুধু ব্যবহার করবেন। মুখ খুব ভালোভাবে পরিষ্কার করে নিন, টোনার লাগান, তারপর হালকা ময়শ্চারাইজার মেখে নিন। ভালো মানের ময়শ্চারাইজার আপনার ত্বক সুস্থ রাখবে,কাছে ঘেঁষতে পারবে না শুষ্কতা বা ডিহাইড্রেশন।

 

বেছে নিন সলিড মেকআপ প্রডাক্ট

মেকআপের সরঞ্জাম পরিষ্কার রাখুন

সলিড অর্থাৎ লিকুইড নয়। মানে তরল মেকআপ প্রডাক্ট এড়িয়ে চলাই ভালো। শুনতে অদ্ভুত লাগলেও মেকআপ কেনার সময় এই কথাটা মাথায় রাখুন স্পর্শকাতর ত্বকের মালকিনেরা। প্রতিদিনের মেকআপের জন্য বেছে নিন স্টিক বা কমপ্যাক্ট মেকআপ। স্টিক বা কমপ্যাক্ট ফাউন্ডেশনে জলীয় বস্তুর পরিমাণ অনেক কম থাকে, ফলে ব্যাকটেরিয়া জন্মাতে পারে না। তাই এই ধরনের মেকআপে প্রিজার্ভেটিভের পরিমাণ আর সংখ্যাও কম থাকে।

 

মেয়াদের দিকে নজর দিন

মেকআপের সরঞ্জাম পরিষ্কার রাখুন

অনেক সময়ই, বিশেষ করে যাঁরা নিয়মিত মেকআপ করেন না, তাঁরা মেকআপ প্রডাক্টের মেয়াদের বিষয়টি মাথায় রাখেন না! 'বেস্ট বিফোর' বলে একটা সময়কাল দেওয়া থাকে মেকআপ প্রডাক্টের প্যাকেজে, তা ছাড়াও খুদে অক্ষরে “6M” (অর্থাৎ ছ' মাস), “12M” (অর্থাৎ এক বছর) উল্লেখ করা থাকে, যা বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই আমাদের চোখে পড়ে না! এর অর্থ সিল করা প্যাক খোলার পর ওই নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে প্রডাক্টটি ব্যবহারযোগ্য থাকবে। এই বিষয়টি মাথায় রাখুন, এবং মেয়াদ ফুরিয়ে যাওয়া মেকআপ পালটে ফেলুন। মানে বুঝতেই পারছেন, গত পাঁচবছর ধরে অত্যন্ত যত্ন নিয়ে যে আই লাইনারটা ব্যবহার করছেন, সেটা এখন ফেলে দেওয়ার সময় হয়েছে!

 

হালকা বেস মেকআপ প্রডাক্ট ব্যবহার করুন

মেকআপের সরঞ্জাম পরিষ্কার রাখুন

পেশাদার মেকআপ শিল্পীরা বলেন, মেকআপের রং অর্থাৎ পিগমেন্ট যত গাঢ় হবে, ত্বক শুষ্ক হয়ে পড়ার আশঙ্কাও ততটাই বেশি। তাই প্রতিদিন ফাউন্ডেশন না লাগিয়ে বেছে নিন বিবি ক্রিম। কারণ বিবি ক্রিমে পিগমেন্টের পরিমাণ অনেক কম, এটি ত্বক শুকিয়ে দেয় না, ফলে এটি নিরাপদ। আর একটা টিপ চাই? পাউডার ব্যবহার করবেন না, কারণ পাউডারের কারণেও ত্বক শুষ্ক হয়ে যেতে পারে। একান্তই যদি পাউডার লাগাতে হয়, তা হলে ব্রাশে করে পাউডার নিয়ে বাড়তি অংশটা ঝেড়ে ফেলে দিন, খুব অল্প করে মুখে লাগান।

 

মেকআপের সরঞ্জাম পরিষ্কার রাখুন

মেকআপের সরঞ্জাম পরিষ্কার রাখুন

সঠিক প্রডাক্ট ঠিকঠাক নিয়ম মেনে পরার পরেও যদি আপনার মেকআপ লাগানোর সরঞ্জামগুলো পরিষ্কার না থাকে, তা হলে ত্বকে সমস্যা হতে পারে। ত্বকে বিক্রিয়া এড়াতে সপ্তাহে একদিন সমস্ত মেকআপ ব্রাশ ধুয়ে পরিষ্কার করে রাখুন। ব্রাশ বা স্পঞ্জ দিয়ে মেকআপ লাগানোর সময়ও হালকা হাতে লাগান, বেশি ঘষাঘষি করলে ত্বকে প্রদাহ আর র‍্যাশ দেখা দিতে পারে।

Manisha Dasgupta

Written by

Author at BeBeautiful.
1235 views

Shop This Story

Looking for something else